ঘূর্ণিঝড় ইয়াস এর প্রভাবে সন্দ্বীপে বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে লোকালয় পানিতে সয়লাভ দিনভর জনভোগান্তি

0
ইলিয়াস কামাল বাবুঃ 
শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় ” ইয়াস ” চট্টগ্রাম ও এর আসে পাশের দ্বীপ সমূহে দুপুরে সরাসরি আঘাত না হানলেও এর প্রভাবে সন্দ্বীপ উপজেলার সারিকাইত ইউনিয়নের উপকূলীয় বেড়িবাঁধের দুই তিনটি দুর্বল পয়েন্ট ভেঙ্গে সাগরের উপচে পড়া প্রবল জোয়ারের পানি লোকালয়ে প্রবেশ করে বিস্তীর্ণ এলাকা সয়লাভ করে দেয়।
দক্ষিণ সন্দ্বীপের সারিকাইত ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম পনির এ প্রতিবেদক কে বলেন- বার বার তাগাদা দেয়া সত্বেও পানি উন্নয়ন বোর্ডের ঠিকাদার রা ওয়ার্ক অর্ডার অনুযায়ী নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে বেড়িবাঁধের কাজ সম্পন্ন না করায় আজকের এই করুন অবস্থা। তিনি আরো বলেন- সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে সাগর ফুঁসে ওঠায় প্রবল জোয়ারের চাপে বিশেষ করে সারিকাইত ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ডের চৌকাতলী এলাকার সাগরতীরবর্তী উপকূলীয় রক্ষাবাঁধ ভেঙ্গে প্রবল জোয়ার লোকালয়ে প্রবেশ করে বিস্তীর্ণ জনপদ সয়লাভ করে দেয়। এতে করে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি না হলেও জনদুর্ভোগ বাড়িয়ে তোলে। সন্দ্বীপ উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেপি দেওয়ান এ প্রতিবেদক কে বলেন-ঘূর্ণিঝড় সতর্কতায় তিনি সন্দ্বীপের বিভিন্ন উপকুলীয় এলাকা সরেজমিনে পরিদর্শন করেছেন। বিশেষ করে সারিকাইতের ক্ষতিগ্রস্থ বেড়িবাঁধ দিয়ে রাতের জোয়ারে যেনো সাগরের উচ্চ জোয়ার লোকালয়ে প্রবেশ করতে না পারে সে জন্য ইতোমধ্যেই পানি উন্নয়ন বোর্ডের সন্দ্বীপের দায়িত্বে থাকা উপ সহকারী প্রকৌশলীর মাধ্যমে বেড়িবাঁধের ক্ষতিগ্রস্থ অংশ সমূহ মেরামতের কাজ চালানো হচ্ছে। তবে সন্দ্বীপের সাগরতীরবর্তী লোকালয় সমূহের অনেক লোকজন মনে করেন আজ পূর্ণিমা এবং গ্রহন থাকায় যদি বাতাসের বেগ বেশি থাকে তাহলে মধ্যরাতের প্রবল জোয়ারের চাপে আবারো উপকূলীয় রক্ষা বেড়ির দুর্বল স্থান গুলো ভেঙ্গে লোকালয়ে পানি প্রবেশ করতে পারে বলে তারা এই আতংকে আছেন।

একটি উত্তর দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে